আর দশদিন শুধু পজিটিভ ভাবনা চান হাবাস, লড়াকু ফুটবল চান খালিদ

হিরো ইন্ডিয়ান সুপার লিগের দ্বিতীয় সেমিফাইনালের প্রথম লেগ শনিবার। বাম্বোলিমে মুখোমুখি এটিকে মোহনবাগান ও নর্থইস্ট ইউনাইটেড এফসি। লিগ টেবলে দু’নম্বরে থেকে শেষ করেছে কলকাতার দল। তিন নম্বরে ছিল নর্থইস্ট ইউনাইটেড। উত্তর-পূর্ব ভারতের দুই দল এ বার মুখোমুখি ফাইনালে ওঠার যুদ্ধে। এই লড়াইয়ে নামার আগে দুই দলের কোচ কী বললেন, পড়ে নিন।

আন্তোনিও লোপেজ হাবাস (প্রধান কোচ, এটিকে মোহনবাগান)

লিগের শেষ ম্যাচে হার প্রসঙ্গে: (মুম্বইয়ের কাছে হারটা ছিল) ফুটবলেরই এক পরিস্থিতি। লিগের শেষে মুম্বই ও আমরা দুই দলই ৪০ পয়েন্ট করে পেয়েছি। তফাৎটা পয়েন্টে নয়, আগের ম্যাচের ভিত্তিতে হয়েছে।

সন্দেশ ঝিঙ্গনের চোট নিয়ে: ও আমাদের দলের এক গুরুত্বপূর্ণ সদস্য। অন্যদের মতোই। সন্দেশ খেলতে না পারলে ওর সতীর্থ কেউ একজন খেলবে। এটা কোনও অজুহাত হতে পারে না। আমাদের দলের বাকি সবাই ভাল খেলোয়াড়। কোনও সমস্যা হবে বলে মনে হয় না।

প্রতিপক্ষ সম্পর্কে: নর্থইস্ট ইউনাইটেড এই মরশুমে খুব ভাল খেলেছে। প্রতিপক্ষ হিসেবে ওরা বেশ কঠিন। কারণ, ওদের সব বিভাগেই ভাল খেলোয়াড় রয়েছে। ওরা খুব ব্যালান্সড দল। আমাদের খেলোয়াড়রাও যথেষ্ট ভাল। আমরা যদি ১০০ শতাংশ দিই, তা হলে এই ম্যাচে জিততে পারি।

এসিএলে খেলতে না পারার হতাশা প্রসঙ্গে: জীবন চলবে, ফুটবল চলবে। আমাদের এখন শুধু পজিটিভ ভাবনা ভাবতে হবে। এতগুলো মাস আমরা আত্মীয়, বন্ধু ছাড়া হোটেলবন্দী জীবন কাটালাম। আর দশটা দিন আমাদের শুধু পজিটিভ ভাবনা নিয়েই থাকতে হবে। আইএসএল চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পরে আমরা ফের আমাদের প্রিয়জনের সঙ্গে দেখা করতে পারব।

লিগের শেষ দুই ম্যাচে ব্যর্থতা প্রসঙ্গে: শেষ দুটো ম্যাচে এক পয়েন্ট পেয়েছি ঠিকই। কিন্তু তার আগের পাঁচটা ম্যাচেই জিতেছি আমরা। এটা ফুটবল। অঙ্ক নয়। এমন হতেই পারে। হয়তো ভুল হয়েছে। তবে আমাকে শুধু দুটো ম্যাচ নিয়ে ভাবলে চলবে না, পুরো মরশুম নিয়ে ভাবতে হবে।

সম্ভাব্য টাই ব্রেকারের প্রস্তুতি নিয়ে: ৯০ মিনিটের ফুটবল নিয়ে ভাবছি এখন। পেনাল্টি শুট আউট নিয়ে ভাবছি না। এই পর্বে হার-জিতের ফয়সালা হবেই। তাই আমি শুধু আমার টিমের ব্যলান্স নিয়ে ভাবছি।

সমর্থকদের উদ্দেশ্যে বার্তা: সমর্থকদের গর্বিত হওয়া উচিত, তাদের প্রিয় দল যতটা সম্ভব ভাল খেলেছে। কিছু ম্যাচে হয়তো আমরা প্রত্যাশা অনুযায়ী খেলতে পারিনি। কিন্তু বেশির ভাগ ম্যাচেই ভাল খেলেছি। লিগের শেষে মুম্বই সিটি এফসি এবং আমরা একই সংখ্যক পয়েন্ট পেয়েছি। ফারাকটা শুধু গোলে, খুবই সামান্য ফারাক।

খালিদ জামিল (ভারপ্রাপ্ত কোচ, নর্থইস্ট ইউনাইটেড এফসি)

প্রতিপক্ষ ও ম্যাচ প্রসঙ্গে: কাল আমরা এটিকে মোহনবাগানের মতো একটা ভাল দলের বিরুদ্ধে খেলতে নামছি। আক্রমণ ও রক্ষণ, দুদিক থেকেই ওরা বেশ শক্তিশালী। আমাদের যথেষ্ট সাবধান হতে হবে। ওদের আমরা হালকা ভাবে নিতে পারব না। প্রথম ম্যাচটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। ম্যাচটা কঠিন হতে চলেছে। আমাদের লড়াই করতে হবে। সারা মরশুমে যে ভাবে খেলেছি আমরা, সে ভাবেই খেলব। প্রথম লেগটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আমাদের ধৈর্য ধরে খেলাটাকে নিয়ন্ত্রণ করতে হবে।

নিজের দল প্রসঙ্গে: দলের প্রত্যেকেই খুব ভাল মুডে রয়েছে। ওরা সেমিফাইনালের গুরুত্ব বোঝে। আমরা দুটো ম্যাচ খেলব। তবে এখন শুধু প্রথমটা নিয়েই ভাবছি। এই ম্যাচটা নিয়ে আমরা খুব সিরিয়াস।

দেশীয় কোচ প্রসঙ্গে: টিম ম্যানেজমেন্ট দেশীয় কোচ নিয়োগ করবে নাকি বিদেশি কোচ, তা সম্পুর্ণ তাদের ব্যাপার। তবে এটা ঠিকই যে, ভারতীয় কোচেরা সুযোগ পেলে নিজেদের প্রমাণ করতে পারে।

 

Your Comments

Your Comments