এসসি ইস্টবেঙ্গলের আক্রমণে চিমার সঙ্গী হতে চলেছেন ক্রোয়েশিয়ার পেরোসেভিচ

ডিফেন্ডার ফ্রানিও পর্চের পর এ বার ক্রোয়েশিয়ার আর এক ফুটবলারকে নেওয়ার সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত করে ফেলল এসসি ইস্টবেঙ্গল। তিনি ফরোয়ার্ড আন্তোনিও পেরোসেভিচ। আসন্ন হিরো আইএসএল মরশুমে লাল-হলুদ বাহিনীর আক্রমণ বিভাগে নাইজেরিয়ান স্ট্রাইকার ড্যানিয়েল চিমা চুকুউর সঙ্গী হতে চলেছেন তিনি। বৃহস্পতিবার এই খবর ঘোষণা করা হল ক্লাবের পক্ষ থেকে।

এর আগে হাঙ্গেরির উজপেস্ট এফসি-র হয়ে খেলতেন ২৯ বছর বয়সী এই ফরোয়ার্ড। ওই ক্লাবের হয়ে ১৩টি ম্যাচে প্রথম এগারোয় ছিলেন। শুধু স্ট্রাইকার নয়, প্রয়োজনে খেলেন উইঙ্গার হিসেবেও। ২০১৭-য় ক্রোয়েশিয়ার জাতীয় দলের হয়ে দু’টি ম্যাচ খেলেছেন তিনি। ২০১০-এ তাঁর নিজের শহর ওসিজেকের যুব দলে খেলা শুরু করেন পেরোসেভিচ। সেই মরশুমেই তাঁকে সিনিয়র দলে সুযোগ দেওয়া হয়।

২০১১-১২ মরশুমে সাতটি গোল করে ক্লাবের সর্বোচ্চ গোলদাতার পুরস্কার পান তিনি। ২০১৭-য় তিনি দেশ ছেড়ে হাঙ্গেরিতে চলে যান সেখানকার ক্লাব পুসকাস অ্যাকাদেমিয়ার ডাকে। সেখান থেকে পরের বছর লোনে যান সংযুক্ত আরব আমিরশাহীর আল ইত্তিহাদ কলবা এসসি-তে।

ভারতে আসার সুযোগ পেয়ে খুশি পেরোসেভিচ ক্লাবের ওয়েবসাইটে বলেছেন, “ভারত এক অসাধারন দেশ এবং ওখানকার মানুষের ফুটবল-আবেগ নিয়েও অনেক কিছু শুনেছি। বিশেষ করে এসসি ইস্টবেঙ্গলের সমর্থকদের সম্পর্কে। লাল-হলুদ জার্সি পরার অপেক্ষায় আছি। এই ক্লাবের ঐতিহ্যের কথাও শুনেছি। ক্লাবের সন্মান বজায় রাখার খুব চেষ্টা করব”।

ক্লাব কর্তাদের সঙ্গে তাঁর যে বিস্তারিত আলোচনা হয়েছে, তা জানিয়ে পেরোসেভিচ বলেন, “ক্লাবের কর্তাদের সঙ্গে ভাল আলোচনা হয়েছে আমার। নতুন অভিযানের জন্য আমি তৈরি। কোচিং স্টাফ ও সতীর্থদের সঙ্গে দেখা করার অপেক্ষায় রয়েছি। এটিকে মোহনবাগানের বিরুদ্ধে কলকাতা ডার্বি নিয়েও অনেক কথা শুনেছি। এই ধরনের ম্যাচ ফুটবলারদের আরও বেশি মোটিভেশন জোগায়”।

এর আগে আসন্ন মরশুমের জন্য আরও পাঁচ বিদেশি ফুটবলারদের নাম ঘোষণা করেছে এসসি ইস্টবেঙ্গল। এই তালিকায় ছিলেন স্লোভেনিয়ান মিডফিল্ডার আমির দার্ভিসেভিচ এবং দুই সেন্টার ব্যাক অস্ট্রেলিয়ান টমিস্লাভ মরচেলা ও ক্রোয়েশিয়ান ফ্রানিও পর্চে, নাইজিরিয়ান স্ট্রাইকার ড্যানিয়েল চিমা চুকুউ এবং নেদারল্যান্ডসের ডিফেন্সিফ মিডফিল্ডার ড্যারেন সিডোল। এ বার এই তালিকায় যুক্ত হলেন দলের শেষ বিদেশি সদস্য ক্রোয়েসিয়ান ফরোয়ার্ড আন্তোনিও পেরোসেভিচ।

সম্প্রতি দলের নতুন কোচের নামও ঘোষণা করেছে এসসি ইস্টবেঙ্গল। লিভারপুলের কিংবদন্তি ফুটবলার রবি ফাউলারের জায়গায় নতুন কোচ হিসেবে যোগ দিচ্ছেন স্পেনের হোসে মানুয়েল ‘মানোলো’ ডিয়াজ ফার্নান্ডেজ। রিয়াল মাদ্রিদের যুব ও রিজার্ভ দল-সহ বিভিন্ন ক্লাবে ২০ বছর ধরে কোচের দায়িত্ব পালন করে আসা ডিয়াজ এ বার এসসি ইস্টবেঙ্গল দলের প্রধান কোচের দায়িত্বে।

বিদেশিদের আগে ১৭ জন ভারতীয় ফুটবলারের নামও ঘোষণা করেছে কলকাতার এই ক্লাব। তাঁরা হলেন গোলকিপার অরিন্দম ভট্টাচার্য, ডিফেন্ডার আদিল খান, স্যারিনিও ফার্নান্ডেজ, রাজু গায়কোয়াড়, হীরা মন্ডল, জয়নার লরেন্সো, অঙ্কিত মুখার্জি, ড্যানিয়েল গোমস, মিডফিল্ডার অমরজিৎ সিং কিয়াম, জ্যাকিচন্দ সিং, রোমিও ফার্নান্ডেজ, সৌরভ দাস, সংপু সিঙসিট, লালরিনলিয়ানা হামতে এবং স্ট্রাইকার শুভ ঘোষ, নাওরেম মহেশ সিং ও থঙখোসিম সেম্বয় হাওকিপ।

আসন্ন হিরো আইএসএলে এসসি ইস্টবেঙ্গল প্রথম ম্যাচ খেলতে নামছে ২১ নভেম্বর জামশেদপুর এফসি-র বিরুদ্ধে। এর পরেই ২৭ নভেম্বর এটিকে মোহনবাগানের বিরুদ্ধে কলকাতা ডার্বি খেলতে নামবে তারা। যে ভাবে দল সাজাচ্ছে তারা, তাতে কলকাতা ডার্বি জমজমাট হয়ে ওঠার সমস্ত রসদ ভরপুর।

 

Your Comments

Your Comments